এই মৃত্যুকূপ আমার দেশ না

454

বার পঠিত

যখন দেশের মাটিও একটি প্রতিষ্ঠিত ধর্মের মুখোশ পায় এবং রাষ্ট্র হয়ে উঠে ধার্মিক তখন মানুষগুলো শুয়োর হয়ে যায়’। missed several doses of synthroid

শাহবাগ আন্দোলনের পর থেকে মৌলবাদীদের প্রধান টার্গেট তৈরী হয়েছে মুক্তচিন্তক ব্লগাররা। আমার খুব ইচ্ছা হয় শাহবাগ আন্দোলনকে গণজাগরণের আন্দোলন বলতে,যেমন আমি নিজেও সেই আন্দোলনের পর জেগে উঠেছি। বুঝেছি দেশ, দেশের মানুষ এবং ইতিহাস কতটা মূল্যবান। কিন্তু আদতে তা ঠিক হয়ে উঠেনি। দেশের মানুষ সচেতন হয়ে উঠতে পারেনি আজো। এখানে দেশপ্রেম সম্পর্কে আমার রবিঠাকুরের কথা মনে পড়ছে। রবিঠাকুর বলেছেন,

“দেশ মানুষের সৃষ্টি। দেশ মৃন্ময় নয়, দেশ চিন্ময়। মানুষ যদি প্রকাশমান হয়, তবেই দেশ প্রকাশিত। সুজলা, সুফলামলয় শীতলা ভূমির কথা যতই উচ্চকণ্ঠে রটান ততই জবাবদিহির দায় বাড়বে, প্রশ্ন উঠবে। প্রাকৃতিক দেশ তো উপাদানমাত্র, তা নিয়ে মানবিক সম্পদ কতটুকু গড়ে তোলা হল। মানুষের হাতে দেশের জল যদি শুকিয়ে যায়, ফল যদি যায় মরে, মলয়জ যদি বিষিয়ে ওঠে মরিবীজে, শস্যের জমি যদি হয় বন্ধ্যা,তবে কাব্য-কথায় দেশের লজ্জা চাপা পড়বে না। দেশ মাটিতে তৈরী নয়,দেশ মানুষে তৈরী।” renal scan mag3 with lasix

ফেব্রুয়ারির ২৬ তাং খুন করা হল ব্লগার-লেখক অভিজিৎ রায়কে। এরপর মাত্র মাসখানেকের ব্যবধানে গত ৩০ মার্চ হত্যা করা হল ব্লগার ওয়াশিকুর বাবুকে। এর আগে ২০১৩ এর ১৫ ফেব্রুয়ারিতে খুন করা হয় ব্লগার রাজীব হায়দারকে। গত দু বছরে এভাবেই মৌলবাদীদের চাপাতির শিকার হয়েছে সর্বমোট ৮ জন ব্লগার। এছাড়া চাপাতির আঘাতে আহত হয়েছে আরো অনেকে।এখন কথা হল এই যে, হত্যা করা হচ্ছে যাদের তাদের মূল অপরাধ কী ছিল? তাদের অপরাধ তারা মৌলবাদ বিরোধী, নিধার্মিক, মুক্তচিন্তক বিজ্ঞানমনস্ক এবং ধর্মসমালোচক। যেসব কারণে ২০০৪ সালে উগ্রবাদীদের থাবায় আমরা হরিয়েছি লেখক হুমায়ুন আজাদের মতন একজন প্রগতিশীল মানুষকে।

255438_198724800274880_1984480771_n

নাস্তিকমুক্ত বাংলাদেশ চাই’ উপরের ছবিটি দেখুন। ছবিটি দেখার পর আপনার কী মনে হচ্ছে?এই ছবিটি দেখার পর সত্যি বলতে আমার কিছু মনে হয়নি। কারণ এই মৌলবাদী দেশে এমনটাই স্বাভাবিক বলে মনে হয়েছে। কিন্তু এখন কথা হল, উপরের ছবিটির মতন যদি আমিও একটি প্ল্যাকার্ড হাতে নেমে পড়ি। এবং সেখানে যদি লেখা থাকে ‘ইসলামমুক্ত বাংলাদেশ চাই’। তাহলে কী হতে পারে? নাহ! তারপরের টুকু বলে দিতে হবেনা। আপনারা সবই জানেন এবং বোঝেন।

এবার এই ছবিটি দেখুন এবং পড়ুন
11008610_810440365702453_3518944615330274398_o

সত্যি! কী নিয়ে লিখবো আমি? ‘কলমের দাঁত ভেঙে দিতে উদ্যত কালো হাত ‘। ওয়াশিকুর বাবু, মধ্যবিত্ত ঘরের ছেলে। অপরাধ, একটি নিখাদ সুন্দর দেশ চেয়েছিলেন। যেদেশের কোনো ধর্ম নেই। অথচ তিনি ভুলে গিয়েছিলেন,তিনি যে দেশের কাছে এমন অন্যায় আবদার করছেন সেই দেশের সংবিধান শুরু হয়েছে ‘বিসমিল্লাহি রহমানির রাহিম’ দিয়ে। অতপর যা হবার তাই হল।

IMG_3717637620224

“কোনোদিন জাগিবে না আর/কোনোদিন জাগিবে না আর/জাগিবার গাঢ় বেদনার/অবিরাম অবিরাম ভার/সহিবে না আর”
তাকে বিদায় নিতে হল। মৌলবাদীরা তার মস্তিষ্কের স্ফুরন চাপাতি দিয়ে ফালিফালি করে ফেলল। ওয়াশিকুর বাবু থেকে অভিজিৎ রায়, রাজীব হায়দার, হুমায়ুন আজাদ সকলের হত্যা আক্রমণের প্যাটার্ন এক এবং অভিন্ন। ঘাতকদের মূল টার্গেট ছিল মাথা। এখন মাথাই শুধু কেন? কারণ ঘাতকরা খুন করেছে কোরআনে নির্দেশিত হত্যার প্যাটার্নে। কোরআনে আট নং সুরা ‘আল আনফাল’ এর ১২ নম্বর আয়াতে বলা হয়েছেঃ

“যখন নির্দেশ দান করেন ফেরেশতাদিগকে তোমাদের পরওয়ারদেগার যে, আমি সাথে রয়েছি তোমাদের, সুতরাং তোমরা মুসলমানদের চিত্তসমূহকে ধীরস্থির করে রাখ। আমি কাফেরদের মনে ভীতির সঞ্চার করে দেব। কাজেই গর্দানের উপর আঘাত হান এবং তাদেরকে কা’ট জোড়ায় জোড়ায়।”

একের পর এক এভাবেই খুন হচ্ছে মুক্তচিন্তক এবং প্রথাবিরোধীরা। মনে হয় আমরা আবার মধ্যযুগে ফিরে গেছি। ধর্মের নামে বলি হয়ে যাচ্ছে সব তাজা প্রাণ। এই যে হত্যাকান্ডগুলো হচ্ছে এর প্রায় প্রত্যেকটির সাথে জড়িত আনসারুল্লাহ বাংলা টিম (এবিটি) নামে উগ্রপন্থি সংগঠন। অথচ বাংলাদেশের আইন এবং বিচারবিভাগ এদের কিছু করতে পারছেনা। অভিজিৎ রায়কে
খুন করা হলএক মাসের বেশি সময় হল। কিন্তু পুলিশ আজো ঘাতককে ধরতে পারেনি।হুমায়ুন আজাদের হত্যার বিচার আজো হয়নি। রাজীব হায়দার হত্যার বিচারেরও একই অবস্থা। ওয়াশিকুর বাবুর ঘাতকের দুজন অবশ্য ধরা পড়েছে। কিন্তু সেখানেও এক বিশাল ঘটনা। হত্যাকান্ড হতে দেখেও যখন অন্য পথচারীরা নিশ্চুপ তখন কোথা থেকে তিনজন শিখন্ডী এসে ঘাতক ধরে ফেলে। খবরটা শুনে আমি সত্যি চমৎকৃত। আমরা যাদের মানুষ পরিচয় দিতে নারাজ তারাই এমন সাহসী কাজ করল আর বাকীরা কাপুরুষের মতন মজা লুটল। বাংলাদেশ পুলিশ বিভাগে যদি শিখন্ডীদের নেয়া হয় তবে হয়তো অপরাধীকে ধরা সহজ হয়ে যাবে! আমি স্যালুট করি সেই তিনজন সাহাসী মানুষকে।এদিকে ধরা পড়া দুই ঘাতক জিকরুল্লাহ এবং আরিফ দুজনই মাদ্রাসার সাথে সম্পৃক্ত। যে মাদ্রাসাগুলো শফী হুজুরের আন্ডারে। অথচ পুলিশ তা অস্বীকার করেছে। অনেক সময়েই মাদ্রাসা শিক্ষাব্যবস্থা নিয়ে পপ্রশ্ন উঠেছে।অনেকদিন যাবৎ মাদ্রাসা শিক্ষাব্যবস্থা তুলে দেয়ার কথাও বলে যাচ্ছেন মুক্তচিন্তকরা। তারেক মাসুদ তার ‘মাটির ময়না’ ‘রানওয়ে’ এসব সিনেমায় দেখিয়েছেন মাদ্রাসা এবং মৌলবাদের চিত্র। অথচ সরকারের এ ব্যাপারে কোনো ভ্রক্ষেপ নেই। তাই আজ মনে হয়,

‘আমাদের মহল্লায় মহল্লায় মাদ্রাসা থাকা উচিত। সরকারের কাছে আহ্বান জানাচ্ছি আপনারা আরো পাঁচ দশ পনেরো বিশ হাজার মাদ্রাসাকে অনুমোদন করুন। দেশের সর্বোচ্চ বিদ্যাপিঠগুলোকে মাদ্রাসায় রূপান্তরিত করা হোক। এবং আলাম্মা শফি হুজুরকে দেশের রাস্ট্রপতির দায়িত্ব দেয়া হোক। তিনি তেতুলের বাম্পার ফলন অবশ্যই আমাদের উপহার দিতে পারেন। দেশকে ইসলামের সহি পথে নিয়ে আসুন, তার আগে দেশের অবশ্যই খৎনা করা প্রয়োজন। এছাড়া অন্য যেকোনো মতাবলম্বীকে পাশের মসজিদে গিয়ে কলেমা পড়ে ইসলামের পথে আসার জোর আদেশ জারী করা হোক!’

মৃত্তিকার একটা গান খুব ভালো লাগে। কিছু লাইন এরকমঃ

“ধর্মের নামে পিশাচ সেদিন তাথৈ
হিংস্র থাবা জননীর স্তনে
কান্না ভেজা প্রিয় সংবিধানে
রাষ্ট্রপক্ষ ধর্ম ঢেলে দিলেন ”

Screenshot_2015-04-02-10-59-23

উপরের ছবিটি হেফাজতের ফেইজবুক পেইজ থেকে প্রাপ্ত। আর বেশ কিছুদিন আগে হেফাজত ইসলামের পালের গোদা আলাম্মা শফী তার এক বক্তব্যে ‘নাস্তিকদের হত্যা করা জায়েজ’ এমন মন্তব্যও করেছিলেন। এখন কথা হচ্ছে এমন ইতিহাস বিকৃতিকারী, মৌলবাদী একটি সংগঠনকে কেন আওয়ামী সরকার মদদ দিচ্ছে। এখনও কেন শফী হুজুর বুক চিতিয়ে বেড়ায়। এর কারণ কি শুধুই ক্ষমতা আর ভোট? শফীর হাতে বেশ কিছু ভোট আছে তা আমরা জানি। আওয়ামী সরকার কি তার স্বীয় সত্ত্বা ভুলে যাচ্ছে? নাহ এ সম্পর্কে আমি আর মুখ খুলবোনা। কিছু বলবোও না। প্রশ্নটা রেখে গেলাম। যাবার আগে আরো একটি প্রশ্ন।

Screenshot_2015-04-02-11-23-02

এবং সবশেষে আমি নাস্তিক নাকি ধার্মিক, আমি মুসলিম নাকি হিন্দু এটা আমার পরিচয় না। আমার পরিচয় আমি মানুষ। সেরকম আমার এই দেশটাকেও মুসলিম বানাবেন না, একে দেশ হিসেবে গড়ে তুলুন। যেদেশে মানুষ বাস করে ধর্মিকরূপী ধর্মান্ধ পিশাচ না। একটি নিখাদ দেশ চাই। সকল হত্যার বিচার চাই। will metformin help me lose weight fast

You may also like...

  1. কেন বুঝেও না বুঝার ভান করেন। এই দেশে ভোটের উর্দ্ধে কিছু আছে?

  2. গোটা দুনিয়ায় আজ স্বাধীন চেতা মানুষের জন্যে নিরাপদ না। না ফ্রাস্ন, না নরওয়ে, ইংল্যান্ড কিংবা ইউএসএ। তাহলে কি বলব এই মৃত্যু উপত্যকা আমার পৃথিবী না?
    পুরাতনকে বাতিল করতে অনেক ঘাম আর রক্ত ঝরবেই একদিন ঠিকই মুক্তি আসবে। নিজের মত ক্রএ কাজ করতে থাকুন সবাই metformin synthesis wikipedia

  3. যেদেশে মানুষ বাস করে ধর্মিকরূপী ধর্মান্ধ পিশাচ না। একটি নিখাদ দেশ চাই। সকল হত্যার বিচার চাই কিন্তু দিন দিন পিশাচ বাড়ছে হত্যাও কমছে না বিচার তো পাবোই না

    glyburide metformin 2.5 500mg tabs

আপনার ই-মেইল ও নাম দিয়ে মন্তব্য করুন *

Question   Razz  Sad   Evil  Exclaim  Smile  Redface  Biggrin  Surprised  Eek   Confused   Cool  LOL   Mad   Twisted  Rolleyes   Wink  Idea  Arrow  Neutral  Cry   Mr. Green

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>

Heads up! You are attempting to upload an invalid image. If saved, this image will not display with your comment.

ovulate twice on clomid