লাইফ ডাজেন্ট ইন্ড হেয়ার

412

বার পঠিত

সারাঘরে ছেলেটি অস্থিরভাবে পায়াচারি করছে। এপাশের দেয়াল থেকে ওপাশের জানালা এক হয়ে গেছে। আজকের ওর রেজাল্ট হবে। এই এইচএসসি রেজাল্টের উপর অনেক কিছু নির্ভর করছে। একপাশে বাবা মায়ের স্বপ্ন ছেলে অনেক বড় হয়ে তাদের দূ:খগুলো ঘোচাবে,তাদের মুখ উজ্জ্বল করবে। অপরদিকে তার নিজের স্বপ্ন। নিজেকে এর মাঝেই আরেক জনের মধ্যেই জড়িয়ে নিয়েছে সে। পুনম শাকিল একে অন্যের,এক হাতের পাশাপাশি দুইটি আঙ্গুল যেন।

দুপুর বারোটায় রেজাল্ট দেয়ার কথা। শাকিলের ভয় করছে। শরীর ঘামতে শুরু করেছে। ভাবল পুনমকে একবার কল দেবে। পুনমের মোবাইলটা আবার অফ আছে। মোবাইলে এসএমএস দিয়ে রাখছে। এসএমএসে রেজাল্ট আসতে দেরী আছে। এদিকে ওর সহ্য হচ্ছেনা। কি আর করা,রেজাল্ট দেখার জন্য অগত্যা কলেজে যেতেই হবে।

ম্যানিব্যাগ আর ব্যাগ গুছিয়ে কলেজের দিকে রওনা হল সে। রাস্তায় যেতে যেতে অনেকের সাথে দেখা হল। সবাই রেজাল্ট জানতে চাইল আর মিষ্টি রেডি থাকতে বলল। রিক্সাওয়ালা মামাও পর্যন্ত মিষ্টি খেতে চাইল। কলেজ পৌছে শোনে রেজাল্ট হয়ে গেছে। শাকিল নোটিশ বোর্ডের দিকে দৌড় দিল। নোটিশবোর্ডের ওখানে তীব্র ভিড়। ভিড়ের সবাইকে অচেনা মনে হচ্ছে কেন জানি। উপর থেকে দেখতে দেখতে নিজের রোল দেখে শাকিলের মাথায় আকাশ ভেঙ্গে পড়ল। এটা কিরে সম্ভব! চোখ দুইটা ঘষে আবার দেখল। নিজের চোখকে বিশ্বাস হচ্ছেনা। ওর এ প্লাস হয়নি! ও তো এক্সাম ভালই দিয়েছিল। কোন সাবজেক্টে মিস হইল। কেন মিস হইল। বাবামা কি বলবে আর পুনমের কাছেই কি জবাব দেবে। পুনমের রোলটা দেখতেই মনটা আরো খারাপ হয়ে গেল। পুনম এ প্লাস পাইছে। পুনমকে রিক্স নিয়ে শাকিল নিজের খাতা কপি করতে দিয়েছিল এক্সামে। সেটা কথা না এখন। শাকিলের কান দিয়ে গরম বাতাস বের হইতে থাকল।

মোবাইল বের হতেই পুনমের কল। রিসিভ করবে কি করবেনা ভাবছে। আচ্ছা পুনম তো ওকে ভালবাসে। ও নিশ্চয়ই ব্যাপারটা বুঝবে

-হ্যালো,
-কি খবর? তোমার কোন ফোন নাই যে। আমার গোল্ডেন নিয়া টেনশনে আছি। তোমার কথা আম্মুকে বলছি। কি ব্যাপার কথা বলছ না যে!
-পুনম আমার এ প্লাস হয়নাই!
-কি ব্যাপার মজা নেও!
-না সত্যি!
-তাইলে শয়তান আমার ফোন ধরলি কেন?
কত স্বপ্ন ছিল আমার! আমাকে আর ফোন দিবিনা! accutane prices

এরপরের দৃশ্যগুলো এমন,
শাকিল ঘরের দরজা বন্ধ করে বসে আছে। হাতে দশ পনেরটা কড়া ঘুমের ঔষধ। সে আর কারো কাছে মুখ দেখাতে চায়না। সে বাবা মায়ের স্বপ্ন ভেঙ্গেছে,পুনমের কাছে ছোট হয়েছে। সে গ্লাসটা হাতে নিয়ে…..

না আর লিখতে চাইনা। আমি কোন অশুভ লেখা লিখতে চায়না। আমার কান আর কোন আত্নহত্যার খবর শুনবে না,আমার চোখের রেটিনায় আর কোন মায়ের অশ্রুর প্রতিবিম্ব গড়তে দিতে চাইনা।

কি হইছে ভাই,
রেজাল্ট খারাপ করলে পিছায় যাবা ঠিক আছে কিন্তু হেরে যাবা কেন? লাইফ ডাজেন্ট ইন্ড হেয়ার! নতুনভাবে গড়ে তুলবা নিজেকে। নিজের প্রত্যেক কোষের দিব্যী,মায়ের অশ্রুর প্রতি কণা অণুর শপথ ভাই রেজাল্ট যাই হোক মাথা ঠান্ডা রাখিস। doctorate of pharmacy online

You may also like...

  1. তারিক লিংকন বলছেনঃ

    এইটা কোন ব্যাপার? মাত্রতো জীবন শুরু…
    এই রেজাল্ট রেজাল্ট নয় আরো রেজাল্ট আছে will metformin help me lose weight fast

    viagra en uk
  2. তারপরও দেখবেন খবরে আসবে,রেজাল্ট খারাপ করায় অমুকের আত্নহত্যা :’(

  3. যাহাদিগের বিভিন্ন ভর্তি (বা চাকুরি )ক্ষেত্রে পরীক্ষা দিতে গিয়ে মার্কশিটের উপরে করুনা জন্মে তাদের কাতারে কেন যাবে …?

    ovulate twice on clomid

আপনার ই-মেইল ও নাম দিয়ে মন্তব্য করুন *

doctus viagra

Question   Razz  Sad   Evil  Exclaim  Smile  Redface  Biggrin  Surprised  Eek   Confused   Cool  LOL   Mad   Twisted  Rolleyes   Wink  Idea  Arrow  Neutral  Cry   Mr. Green

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong> viagra in india medical stores

Heads up! You are attempting to upload an invalid image. If saved, this image will not display with your comment.

walgreens pharmacy technician application online
metformin synthesis wikipedia half a viagra didnt work