“সভ্যতার বিনির্মাণে একাত্তরের দলিল হোক আগামীদিনের প্রেরণা”

1336

বার পঠিত

bangladesh-flag_121225604

কেবলই একটি পতাকা নয়

সভ্যতা ব্লগ’ আস্থা রাখে, “বিনির্মাণে আগামীর পথে”  স্লোগানে। আস্থা রাখে, মানব সভ্যতার সকল সফল অর্জনে। আগামীর পথ বিনির্মাণে পূর্বসূরিদের অর্জন আর সাফল্যগাঁথা সেখানে কেবলই প্রেরণা নয় অনেক সময় দিক নির্দেশনা। যেমনটা আমাদের মুক্তিযুদ্ধ। ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধ কেবলই একটি বীরোচিত সফলতার এবং সংগ্রামের অগ্রযাত্রার ইতিহাস নয়, বরং বাঙালী জাতির এগিয়ে চলার দিকনির্দেশনাও বটে। এই বাঙালী সভ্যতা যতদিন থাকবে অথবা মানব সভ্যতায় বাঙালী জাতি যতদিন টিকে থাকবে, ততদিন ১৯৫২ এর ভাষা আন্দোলন এবং ১৯৭১ এর মুক্তিযুদ্ধের সংগ্রাম কেউ মুছে ফেলতে পারবে না।

এরপরও বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের পরাজিত শক্তি নবোদ্যমে তাদের কূটকৌশল এবং ১৯৭৫ সালের কতিপয় বিপথগামী সেনা কর্মকর্তাদের নির্বুদ্ধিতায় আমাদের অগ্রযাত্রাকে থমকে দিতে চায়। থেমে যায় ৭১ এর সকল দালালদের বিচার প্রক্রিয়া এমনকি বিচারাধীন দালালেরাও মুক্ত হয় এবং বাস্তবে তারা বাঙালীর অগ্রযাত্রাকে ২১ বছর থামিয়ে রাখে। এই থেমে থাকা জড়তায় বাঙলার সকল ধরণের মুক্তিচিন্তা এবং মানুষের সামগ্রিক স্বাধীনতা বিপর্যস্ত হয়। পচাত্তর পরবর্তী সময়ে যে শক্তি ক্ষমতায় আসে, তাদের প্রধান ভয়ের কারণ ছিলো একাত্তর। একাত্তর আমাদের শিখিয়েছে একাত্বতা, একাত্তর আমাদের শিখিয়ছে লড়াই করতে, একাত্তর আমাদের শিখিয়েছে অন্যায়ের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে। তাই, তারা সর্বাগ্রে প্রচেষ্টা চালায় একাত্তরের চেতনাকে মানুষের মাঝ থেকে মুছে দিতে কিংবা অন্তত মলিন করে দিতে। তাই, একাত্তরের ধর্মনিরপেক্ষ চেতনাকে দখল করে রাষ্ট্রধর্ম, গণতন্ত্রকে মুছে দিয়ে আসে স্বৈরতন্ত্র, সমাজতন্ত্রের বদলে আসে ঘুণে ধরা পুঁজিবাদ আর জাতীয়তাবাদকে মুছে দেয় ধর্মীয় পরিচয়। একাত্তরের স্বাধীনতার মূল স্তম্ভ ছিল গণতন্ত্র, অর্থনৈতিক মুক্তির অর্থে সমাজতন্ত্র, ধর্মনিরপেক্ষতা এবং জাতীয়তাবাদ। এই চারটিই আমরা হারাতে বসি।

2010-12-05__pcp07

আগামী প্রজন্ম জানুক এই ত্যাগের মহিমা

can levitra and viagra be taken together

আজ স্বাধীনতার ৪২ বছর এবং মহান ভাষা আন্দোলনের ৬২ বছর এখনও হাতে গোনা কিছু ভাষাসৈনিকের সন্ধান মিলে। পেপারে মৃত্যু সংবাদ পাই। হয়তো আগামী ৫/৭ বছরের মাঝেই সকল ভাষাসৈনিকই হারিয়ে যাবেন তাদের অর্জনটুকু রেখে। যে ত্যাগে আজ আমরা বাংলায় কথা বলছি কিংবা বাংলায় ব্লগিং করছি অথবা ভাবছি, তার সবটুকু তাদের হাত ধরেই আসা। ঠিক একইভাবে আগামী ২৫/৩০ বছরের মাঝেই শেষ মুক্তিযোদ্ধাও আমাদের ছেড়ে চলে যাবেন এবং প্রতিদিনই ক্রমাগত কমছে তাঁদের সংখ্যা। অথচ একেকজন মুক্তিযোদ্ধার অবসান অর্থ একেকটি জীবন্ত দলিলের প্রস্থান।

সভ্যতা ব্লগ” উদ্যোগ নিচ্ছে একটি তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার যেখানে দেশের আনাচে কানাছে থাকা সকল বীর-মুক্তিযোদ্ধার সাফল্য গাঁথা আর বীরত্বের ইতিহাস সংগৃহীত থাকবে। নতুন প্রজন্মের সভ্যতার বিনির্মাণে এমন চেতনা ও স্বাধীনতার অর্জনই হবে আগামীর দিকনির্দেশনা। কিন্তু, প্রত্যেক নিবেদিতপ্রাণ মুক্তিযোদ্ধার গল্প আমাদের সংরক্ষণ করতে হবে আগামী প্রজন্মের জন্য বিনির্মাণের পথে নবপ্রেরনায় উন্মাতাল গতিতে ছুটে চলবার জন্য।

৫০৭ টি উপজেলা থেকে দুটি করে এলেও আগামী ২/৩ বছরে আমরা দেড় থেকে দুই হাজার সাক্ষাৎকার কিংবা মুক্তিযুদ্ধের গল্প পেয়ে যাব। এই বীরত্বগাঁথা সংগ্রহের জন্য আমরা কিছু আউট লাইন কিংবা প্রশ্নমালা ঠিক করতে পারি। তবে প্রশ্নমালা ঠিক করবার সময় যে মূল বিষয়গুলো মাথায় রাখতে হবে তাহলো; যোদ্ধার যুদ্ধে অংশগ্রহণের পটভূমি, তার মানসিক ও রাজনৈতিক প্রেক্ষাপট এবং যুদ্ধ পরবর্তী সময়ের রাষ্ট্রের ৪৩ বছরের অর্জন এবং হতাশার হালখাতা। এমন সকল অনুসন্ধিৎসু জিজ্ঞাসায় আমাদের তথ্যভাণ্ডারকে করে তুলবে আরও অনুপম এবং দুর্বার, নতুন প্রজন্মকে আগামীর পথে সভ্যতা বিনির্মাণে।

সভ্যতার সাথে থাকুন, বিনির্মাণে আগামীর পথে…

You may also like...

  1. দুরন্ত জয় বলছেনঃ

    কিছু দিন আগে এক মুক্তিযোদ্ধার সাথে কথা হল। তিনি বঙ্গবন্ধুকে সম্মান করেন। কিন্তু তার কন্যাকে নন। কারণ শেখ হাসিনার বহু কাজ শুধু ক্ষমতা ধরে রাখবার জন্য করা।

    বর্তমানে ছবির হাঁট ভেঙ্গে ফেলা এর উদাহরণ হতে পারে।

    এই সরকার কি করছে? বিচার কার্য নিয়ে তা খেলছে না??

  2. জন কার্টার বলছেনঃ

    দুর্দান্ত উদ্যোগ…….

    আর মি. জয় আপনার সমস্যা কি? synthroid drug interactions calcium

    • দুরন্ত জয় বলছেনঃ

      সমইস্যা!! ৭৫ পরবর্তি ২২বছরের রাজনৈতিক অবস্থা কথা বলা হইল কিন্তু অহন আমাদের সরকার কি করতেছে??? ছবির হাট ভেঙ্গে, হেফুরে জমি দিয়ে কি মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষ শক্তিকে বিশুদ্ধ করণ করতেছে। নাকি পাল্লা ভারি করতেছে??

      • @ জয়

        এখানে তো ঐসব বিষয় নিয়ে কোন কথা হচ্ছে না, চমৎকার একটা উদ্যোগ তুলে ধরা হয়েছে এখানে। অহেতুক কেন অন্য প্রসঙ্গ তেনে আনছেন। যেটা নিয়ে কথা হচ্ছে পারলে সেটা নিয়েই কথা বলুন। অপ্রাসঙ্গিক মন্তব্য কেন করেন ??

  3. ব্যক্তি আর সরকার এক নন। এই কথাটা রিয়েলাইজ করা উচিত। আর ভাল মানুষ হলেই ভাল লীডার হবেন তাও না। উদ্যেগটি ভাল। কিন্তু কার্যকারন এ পরিনত করার সদিচ্ছার প্রয়োজন।

  4. অবশ্যই খুব দারুণ একটি উদ্যোগ। সাথেই আছি সবসময় :)

  5. ইলেকট্রন রিটার্নস বলছেনঃ

    খুব চমৎকার উদ্যোগ। জানিনা কতটুকু অংশ নিতে পারবো, তাও চেস্টা থাকবে।

  6. চাতক বলছেনঃ

    দুর্দান্ত উদ্যোগ। বরাবরই সভ্যতা ব্লগ আমার কাছে ব্যতিক্রমী মনে হয়েছে। সাথে আছি

    posologie prednisolone 20mg zentiva
  7. দারুণ উদ্যোগ। তবে সাক্ষাৎকারের জন্য প্রশ্নের একটা গাইড লাইনের প্রয়োজনীয়তা অনুভব করছি।

  8. তারিক লিংকন বলছেনঃ

    অসাধারণ একটি উদ্যোগ..
    আশাকরি সভ্যতা ব্লগের বিনির্মাণের এই উদ্যোগ সফল হবে!
    অনেক অনেক শুভ কামনা রইলো…

  9. “সভ্যতা ব্লগ” উদ্যোগ নিচ্ছে একটি তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার যেখানে দেশের আনাচে কানাছে থাকা সকল বীর-মুক্তিযোদ্ধার সাফল্য গাঁথা আর বীরত্বের ইতিহাস সংগৃহীত থাকবে।

    মহান উদ্যোগকে স্বাগত জানাই । কিছু করতে পারি আর না পারি সাথেই ছিলাম, সাথেই আছি । জয় বাংলা ।

    viagra vs viagra plus
  10. এ লক্ষ্যটাই আমার আগ্রহ বাড়িয়েছে ব্লগে…. glyburide metformin 2.5 500mg tabs

আপনার ই-মেইল ও নাম দিয়ে মন্তব্য করুন *

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>

Heads up! You are attempting to upload an invalid image. If saved, this image will not display with your comment.

achat viagra cialis france