Category: পর্যালোচনা

can your doctor prescribe accutane

Secret — খুব গোপন এক সুরের ইন্দ্রজাল কিংবা সময়কে স্তব্ধ করে দেয়া এক অভাবিত ভালবাসার উপাখ্যান…

সঙ্গীতের ছাত্র Jay Chou যখন Tamkang স্কুলে ট্রান্সফার হল, তখনও সে জানতো না স্কুলের প্রথম দিন তার জন্য কি অদ্ভুত এক চমক জমিয়ে রেখেছে। sky নামের মেয়েটার সাথে যখন তার প্রথম কথা হল, তার কিছুক্ষন পরে হঠাৎ সে এক অদ্ভুত রকমের রহস্যময় সুর শুনতে পেল। সুরের উৎসের সন্ধানে যখন সে পুরাতন বিল্ডিংটার ভেতরে ঢুকল, হঠাৎ তার সাথে দেখা হয়ে গেলো rain নামের আরেক সঙ্গীতের ছাত্রীর সাথে। দুজনেরই পিয়ানোতে মেজর । পরিচিত হবার পরে স্বভাবতই প্রথম যে প্রশ্নটি জে রেইনকে করল , তা হলঃ সে পিয়ানতে একটু আগে যে সুরটি তুলল, সেটা কোন গানের সুর? রহস্যময়ী রেইন আরও রহস্যময় একটা হাসি...

The Green Mile– নির্মম বাস্তব, অভাবিত পরাবাস্তব আর আত্নগ্লানিময় কিছু যন্ত্রণার উপাখ্যান…

    আমরা মানুষেরা বিধাতার খুব অদ্ভুত এক সৃষ্টি। সৃষ্টির সেরা জীব হিসেবে যদিও আমাদের পাঠানো হয়েছে, কিন্তু এই আমরাই খুব ঠাণ্ডা মাথায় নিষ্পাপ মুখভঙ্গিতে অবলীলায় করে ফেলি জগতের সব রোমহর্ষক অভাবিত নিকৃষ্ট কাজগুলো। তারপর ভাবটা দেখাই যেনো এটা হবারই ছিল। যার ফলে বাধ্য হয়েই স্রষ্টা আমাদের এই নির্দয়, রুঢ় এই বাস্তুবতার মাঝে কিছু ব্যাখ্যাতীত অবাস্তবতা ঢুকিয়ে দেন। যেন এক মুহূর্তের জন্য হলেও আমরা থমকে যাই, একটু গভীরভাবে চেয়ে দেখি আমরা আসলে কি করছি। হোক না সেটা পরাবাস্তবতার মোড়কে… যুক্তরাষ্ট্রের লুইজিয়ানা অঙ্গরাজ্যের এক ওল্ড হোম,১৯৯৯ সাল। টপ হ্যাট মুভিটা দেখার সময় হঠাৎ কোন এক অদ্ভুত কারণে Paul Edgecomb নামের এক...

জাতীয় বেশ্যা আর বড়লোকের ফার্মের মুরগি সংক্রান্ত কিছু অপ্রয়োজনীয় কথা…

প্ল্যানটা বহুত আগের থেকেই ছিল। বালেরকণ্ঠ যখন প্রথম প্রকাশিত হয়, তখন সাকিবকে বহুত রিকোয়েস্ট করে প্রথমালু মাঝে মাঝে ওর কাছ থেকে কিছু লেখা পাইত। আমার এখনও স্পষ্ট মনে আছে, তখন বালেরকণ্ঠ বহুত কাঠ-খড় পুড়ায়ে, হাতে পায়ে ধরেও সাকিবরে তাদের পত্রিকায় কলাম লেখাইতে পারে নাই। তারপর থেকেই সাকিব বালের কণ্ঠের চোখে পৃথিবীর সেরা অপরাধী হয়ে গেল। মজার ব্যাপারটা হচ্ছে, প্রথমালুর বিশিষ্ট ক্রীড়া আবাল স্যার উটপোঁদ শুভ্র ছিলেন ফলেন স্টার মোহাম্মদ আশরাফুলের বিশিষ্ট ভক্ত অনুরাগী। আশরাফুল ম্যাচের পর ম্যাচ জঘন্যভাবে বাজে খেলে আসলেও তিনি নিয়ম করে প্রতি সপ্তাহে দুইটা বা তিনটা অসাধারন রিপোর্ট করতেন আশরাফুলের নামে। কেননা তখন আশরাফুলের মায়াময় চেহারা আর...

The Fall— একটা ভাঙ্গা স্বপ্ন ও এক কল্পনার ফেরিওয়ালার গল্প… 

  গল্পের শুরু ১৮১৫ সালে লস এঞ্জেলসে এক মুভি Stuntman এর ভয়াবহ পাগলাটে এক লাফ দিয়ে। রয় ওয়াকার নামে এই ভদ্রলোক Stuntman হিসেবে তার জীবনের প্রথম মুভিতে রেল ব্রিজ হতে এক অকল্পনীয় লাফ দিয়ে নিজেকে প্রায় পঙ্গু করে ফেলে হাসপাতালে ভর্তি হন। আর কমলালেবুর বাগানে কমলা তুলতে গিয়ে হাত ভেঙ্গে ফেলা আলেকজান্দ্রিয়া নামে এক ছোট্ট পরীও ভর্তি হয় ঐ হাসপাতালে। এক সকালে সে তার প্রিয় নার্সকে চরকা কাটা এক কাগজে ছোট্ট একটা চিঠি লেখে। দুই তলার বারান্দা দিয়ে বাইরে দাঁড়ানো নার্সকে পাঠানো তার সেই চিঠি দিক হারিয়ে গিয়ে পড়ে নিচের তলায় ফ্ল্যাট হয়ে শুয়ে থাকা রয়ের কোলে। চিঠি আনতে যখন...

অসুস্থতা না টালবাহানা!

এদেশে সব ভালো কাজেই বিলম্ব হয়, নিজামীর ফাঁসি তেও যে এমনটাই হবে,সেটা মোটামুটি জানা কথা, অসুস্থতার অযুহাতে রায় পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে এমন তো প্রথম শুনলুম মাইরি! হর্তাকর্তারা বলেনঃ ৪২ বছরের কলংক?? তা ধুয়ে পেলতে একটু তো সময় লাগবেই বটে(আলসেমির ভঙ্গিমায়).. তা তো লাগবোই, গোলাম আজমকে বসাইয়া খাওয়ানো হচ্ছে। হোক না আরেকটা! তার ক্ষেত্রেও একই রকম উপসর্গ দেখা গিয়েছিল প্রসাশনের! আজ হবে, কাল হবে, এরকম করতে করতে এরপর এমন হওয়া হয়েছে, যে, শেষমেষ তো গোলাম আজমের ফাঁসির দড়িটাই ছিড়ে গেল গলা থেকে, এবার আবার নিজামী অধ্যায় শুরু। কাঁদের মোল্লার ফাঁসি কার্যকর নিয়ে তো ভালোই লুকোচুরি হয়েছিল, তারপর তো একরকম পাবলিক ও...

মোহাম্মদ আশরাফুল- এক বিস্ময়ের নাম, এক প্রানপ্রিয় ভালোবাসার নাম, এক বিশ্বাসঘাতকের নাম…

বেশ কয়েকদিন আগে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ(বিপিএল)য়ে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের দায়ে আমাদের ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম সেরা প্রতিভাবান ব্যাটসম্যান, একসময়ের বিস্ময় বালক    মোহাম্মদ আশরাফুলকে আট বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হল। অনেককেই দেখছি তার এই শাস্তি প্রত্যাহারের ব্যাপারে সোচ্চার হতে। অনেকেই বলার চেষ্টা করছেন আশরাফুলের নাকি এখানে কোন দোষ নেই। তাকে নাকি বলির পাঁঠা বানানো হয়েছে। তার শাস্তি প্রত্যাহারের দাবিতে করা মানববন্ধনে অনেকে এটাও বলার চেষ্টা করেছেন, মোহাম্মদ আশরাফুল সম্পূর্ণ নির্দোষ, তাকে নাকি  ফিক্সিংয়ে বাধ্য করা হয়েছে !! এখন প্রশ্ন হল  মোহাম্মদ আশরাফুল আসলে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের নামে কি করেছেন? তার অপরাধ কি আদৌ শাস্তি পাবার মত? তাকে শাস্তি দেওয়াটা কি ভুল হইছে? নাকি...

জর্জ অরওয়েল

Who controls the past controls the future, who controls the present controls the past.’-George Orwell ‘1984’ (1949) জর্জ অরওয়েল ছিলেন একজন বৃটিশ সাংবাদিক এবং লেখক যিনি বিংশ শতাব্দীর দুইটি বিখ্যাত বই “এনিম্যাল ফার্ম ” এবং ” নাইন্টিন এইট্টিফোর ” এর জন্য বিখ্যাত। ২০০৮ সালে টাইমস সাময়িকীর শ্রেষ্ঠ ৫০ জন লেখকের তালিকায় দ্বিতীয় স্থান লাভ করেন। কালোত্তীর্ণ ইংরেজ সাহিত্যিক জর্জ অরওয়েল ১৯০৩ সালের ২৫ জুন বিহারের মতিহারে জন্মগ্রহণ করেন। জর্জ অরওয়েল মূল নাম এরিক আর্থার ব্লেয়ার। অরওয়েলের বাবা রিচার্ড ওয়ামেসলি ব্লেয়ার ইন্ডিয়ান সিভিল সার্ভিসের আফিম বিভাগে কর্মরত ছিলেন। ১৯০৪ সালে অরওয়েল মায়ের সঙ্গে ইংল্যান্ডের হেনলি অন টেমসে চলে আসেন। অতঃপর ১৯১২...

‘The Sea Inside’ সমুদ্র প্রাণ এক মানুষের আত্মহত্যার অধিকার স্থাপনের গল্প…

চলচ্চিত্রঃ The Sea Inside পরিচালকঃ আলেজান্দ্রো আমেনাবার, কাহিনী ও চিত্রনাট্যঃ আলেজান্দ্রো আমেনাবার ও মাতিও জিল বছরঃ ২০০৪, দৈর্ঘ্যঃ ১২৫ মিনিট, ভাষাঃ স্প্যানিশ/ কাতালান, মূল/কেন্দ্রীয় চরিত্রেঃ হ্যাভিয়ের বারদেম, সময়ের অন্যতম শক্তিমান অভিনেতা। রিলিজ ডেটঃ ৩ সেপ্টেম্বর ২০০৪,  আইএমডিবি রেটিং- ৮.০,  রটেন টমেটোঃ ৮৪%, পুরস্কারঃ অস্কার, গোল্ডেন গ্লোব সহ সারাবিশ্বে ৬১ টি পুরষ্কার এবং আরও ৩০ টি মনোনয়ন। বাজেটঃ ১০ মিলিয়ন ইউরো, ওয়ার্ল্ড ওয়াইড বক্স অফিসঃ ৩৮.৫ মিলিয়ন ইউএস ডলার। কাহিনী সংক্ষেপঃ The Sea Inside এর কাহিনী একটি বাস্তব জীবনের গল্প। রামেন সাম্পেদ্রো কামেন একজন স্প্যানিশ মৎস্যশিকারি এবং লেখক। তাঁর জন্ম ৫ জানুয়ারি ১৯৪৩ সালে। মাত্র ২৫ বছর বয়সে ২৩ আগস্ট ১৯৬৮ সালে তিনি সমুদ্রে ডাইভিং করার সময় মর্মান্তিক একটি  দুর্ঘটনায় Quadriplegia-ই আক্রান্ত হয়ে পঙ্গু হন। ২৯ বছর তিনি আত্মহত্যার অধিকার নিয়ে সংগ্রাম...

metformin synthesis wikipedia

ভেঙ্গে পড়ছে মেকী সকল মানবিক সংঘ-পরিষদ

ঘটনা-একঃ  (সমাজ) ঘটনার সূত্রপাত ৩০ মার্চ, ২০১৪। চট্টগ্রাম কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার প্রবেশপত্র সংগ্রহের জন্য রাহী ও উল্লাস কলেজে যাচ্ছিল বেলা এগারোটার দিকে, তখন স্বাধীনতাবিরোধী রাজনৈতিক দল ও যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে অভিযুক্ত জামায়াতে ইসলামীর ছাত্রসংঘ ইসলামী ছাত্র শিবিরের পঞ্চাশ থেকে ষাটজন ক্যাডার তাদের উপর হামলা চালায়। অবশ্যই ধর্মানুভূতির জুজু পুঁজি করে। ঘটনা-দুইঃ  (শিক্ষা)   গত ৩ এপ্রিল থেকে শুরু হওয়া এইচএসসির  তত্ত্বীয় বিষয়ের পরীক্ষা শেষ হওয়ার কথা ছিল ৫ জুন। তবে স্থগিত ইংরেজি দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা গত ৮ জুন নেয়া হয় । এখানের শেষ নয় শিক্ষার মূল উদ্দেশ্য যেখানে মূল্যবোধের সৃষ্টি এবং মানব সভ্যতার অগ্রযাত্রার ক্রমান্বয় ঠিক রাখা মাঝে মাঝে সেখানেও তীব্র... metformin tablet

মিডিয়া…! কী শেখাচ্ছে আমাদের?

CN (কার্টুন নেটওয়ার্ক) চ্যানেলে একটা প্রোগ্রাম হয় “জাস্ট ফান” টাইপের… সেখানে কিছু মানুষ বিভিন্ন করম আজগুবি কাজ কারবার করে জন সাধারণকে ভড়কে দেয়। দূর থেকে গোপন ক্যামেরায় সেগুলো ধারন করা হয় এবং সেটা দেখিয়ে মজা করা করা হয়। এই ধরনের প্রোগ্রাম যে আমি বিদেশী চ্যানেলেই প্রথম দেখি তা নয়। বাংলা চ্যানেলেই বোধহয় প্রথম আমি এগুলো দেখেছিলাম… অনেক আগে “একুশে টিভি” (তখন সরকারী ছিল)-তে দেবাশীষ রায়ের উপস্থাপনায় “পথের প্যাঁচালী” নামের একটা ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান হতো। সেই প্রোগ্রামের একটা অংশ ছিল “প্যাঁচালী মদন”! জনসাধারনকে নিয়ে পাবলিক প্লেসে একটা ইভেন্ট হতো। সেখানে একজন মানুষকে বোকা বানানো হতো… চূড়ান্ত বোকা বানানো লোকটিকে বিভিন্ন গিফটের সাথে “প্যাঁচালী...

will metformin help me lose weight fast

ত্রিশোত্তর বাঙলা কবিতায় কলাকৈবল্যবাদ, অস্তিত্ববাদ ও তিন দ্রোহি কবি [পর্ব -৩]

তৃতীয় দ্রোহি : সুধীন্দ্রনাথ দত্ত (ইতোমধ্যে ১ম ও ২য় পর্ব পোস্ট দেয়া হয়েছে) আমার কথা কি শুনতে পাও না তুমি ? কেন মুখ গুঁজে আছো তবে মিছে ছলে ? কোথায় লুকাবে ? ধূ-ধূ করে মরুভূমি ; ক্ষ’য়ে-ক্ষ’য়ে ছায়া ম’রে গেছে পদতলে । আজ দিগন্তে মরীচিকাও যে নেই ; নির্বাক, নীল, নির্মম মহাকাশ । নিষাদের মন মায়ামৃগে ম’জে নেই ; তুমি বিনা তার সমূহ সর্বনাশ । কোথায় পলাবে ? ছুটবে বা আর কত ? উদাসীন বালি ঢাকবে না পদরেখা । প্রাকপুরাণিক বাল্যবন্ধু যত বিগত সবাই, তুমি অসহায় একা ।। ফাটা ডিমে আর তা দিয়ে কী ফল পাবে ? মনস্তাপেও লাগবে না...

renal scan mag3 with lasix

It’s a Wonderful Life— স্রস্টার এক অকল্পনীয় উপহারের গল্প…

  I owe everything to geroge beily , Help him dear father… Joseph, jesus and marry, help my friend mr. beily Help my son geroge tonight… He nevar thinks about himself, god. That’s why he is in trouble Goerge is a good guy, give him some peace, dear god I love him dear lord, wacth over him tonight. Please god, something is the matter with daady, please bring daddy back…. স্বর্গের উচ্চপদস্থ দেবদূত জোসেফ হঠাৎ করেই খুব চিন্তায় পড়ে গেলেন। ফ্রাঙ্কলিন নামের অন্য উচ্চপদস্থ দেবদূত যখন তাকে চিন্তিত হবার কারন জিজ্ঞেস করলেন, জোসেফ জানালেন এক অদ্ভুত সমস্যার কথা। হঠাৎ করেই...

tome cytotec y solo sangro cuando orino

অ্যাডভেঞ্চার অথবা হারিয়ে যাওয়ার গল্প বলে যাওয়া…

শী এর অপরুপা রহস্যময়ী নারী আয়েশা অথবা অ্যালান কোয়াটারমেইনের সাথে ওয়াইল্ড আফ্রিকায় চষে বেড়ানো… সাদামাটা জীবনের মারপ্যাঁচে পড়ে যারা একটু হাঁফ ছেড়ে বাঁচতে চান, দুর্গম শহর, রাজপথ বা মিসরের পিরামিডের ভেতরের অপার রহস্যে সামিল হতে চান, তাদের জন্য হেনরি রাইডার হ্যাগার্ড হচ্ছেন আশ্চর্য এক জাদুকাঠির নাম। শৈশব কৈশোরে অ্যাডভেঞ্চারের নেশায় বুঁদ করে রাখা এই কালজয়ী লেখকের আজ মৃত্যুদিবস। হেনরী রাইডার হ্যাগার্ড জন্মগ্রহণ করেন ১৮৫৬ সালের বাইশে জুন, ইংল্যান্ডের নরফোকের ব্রেডেনহামে। দশ ভাই বোনের সংসারে তিনি ছিলেন অষ্টম। বাবার সামর্থ ছিলো না, তাই পড়তে পারেননি ভালো কোন স্কুল কলেজে। আর্মিতে চাকরির জন্য পরীক্ষা দিয়েছিলেন, কিন্তু তাতে পাশ করতে পারেননি। এরপর ব্রিটিশ...

শহীদ জুয়েল ও শহীদ মুশতাক– অসামান্য কিছু বীরত্বের উপাখ্যান এবং একটা প্ল্যাকার্ডের গল্প…..

  ক্র্যাক প্লাটুনের গেরিলা বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হালিম খান (জুয়েল) দৃশ্যপট — ১ লোকটা খুব অদ্ভুতধরনের। ক্রিকেট ছাড়া কিছুই বোঝে না। ক্রিকেট তার ধ্যানজ্ঞান এবং পাগলামি। আর আজাদ বয়েজ ক্লাব তার সেই পাগলামির ফসল। আজাদ বয়েজ ক্লাবটাকে নিজের হাতে গড়ে তুলেছেন মুশতাক। যদিও পশ্চিম পাকিস্তানিরা বাঙ্গালীদের মানুষ বলেই মনে করে না, ক্রিকেট খেলোয়াড় তো বহু দুরের কথা। তারপরও মুশতাকের মতো কিছু ক্রীড়া সংগঠকের জন্য আজ অনেক প্রতিভাবান খেলোয়াড়েরা খেলতে পারছে,নিজেদের মেলে ধরতে পারছে। যেমন, আবদুল হালিম চৌধুরীর কথাই ধরা যাক না। ডাকনাম তার জুয়েল। জগন্নাথ কলেজের ছাত্র জুয়েল ছোটবেলার থেকেই ক্রিকেটের প্রচণ্ড ভক্ত। মুশতাকের মতই ক্রিকেটটাকে ভালবেসেছেন খুব ছোটবেলার থেকে।...

কপালকুণ্ডলা – বাংলাসাহিত্যের দ্বিতীয় সার্থক উপন্যাস

“তুমি অধম — তাই বলিয়া আমি উত্তম না হইব কেন?” “পথিক, তুমি পথ হারাইয়াছ?” প্রথম লাইনটা শোনেনি, এমন বাঙালি বোধহয় না খুঁজে পাওয়া যাবে। আর দ্বিতীয় লাইনটাকে বাংলা সাহিত্যের অন্যতম শ্রেষ্ঠ রোমান্টিক ডায়লগের স্বীকৃতি দেয়া হয়। দুটো লাইনই বঙ্কিমচন্দ্রের এক উপন্যাসের অংশ — কপালকুণ্ডলা । তীর্থযাত্রীদের নৌকা পথ হারিয়ে এক মোহনায় উপস্থিত হয়। জনবিচ্ছিন্ন সে জায়গায় নৌকার সবার আহারের কথা চিন্তা করে নবকুমার বনের মধ্যে কাঠ আনতে যায়। কিন্তু, এর মাঝে জোয়ার চলে এলে সবাই নবকুমার কে রেখেই চলে যায়। সেখানে নবকুমার এর দেখা হয় এক কাপালিকের সাথে। কাপালিক চায় তাকে ভৈরবীর কাছে বলি দিতে। কিন্তু, কাপালিকের আশ্রিতা কপালকুণ্ডলার সহায়তায় নবকুমার...

accutane prices

দাও ফিরে সে অরণ্য, লও এ নগর!

দাও ফিরে সে অরণ্য, লও এ নগর, লও যত লৌহ লোষ্ট্র কাষ্ঠ ও প্রস্তর হে নবসভ্যতা! হে নিষ্ঠুর সর্বগ্রাসী, দাও সেই তপোবন পুণ্যচ্ছায়ারাশি, গ্লানিহীন দিনগুলি, সেই সন্ধ্যাস্নান, সেই গোচারণ, সেই শান্ত সামগান, নীবারধান্যের মুষ্টি, বল্কলবসন, মগ্ন হয়ে আত্মমাঝে নিত্য আলোচন মহাতত্ত্বগুলি। পাষাণ পিঞ্জরে তব নাহি চাহি নিরাপদে রাজভোগ নব– চাই স্বাধীনতা, চাই পক্ষের বিস্তার, বক্ষে ফিরে পেতে চাই শক্তি আপনার, পরানে স্পর্শিতে চাই ছিঁড়িয়া বন্ধন অনন্ত এ জগতের হৃদয়স্পন্দন। ১৯ চৈত্র, ১৩০২ রবী ঠাকুরের এই কবিতার সাথে সবাই ই কম বেশি পরিচিত। পুরো কবিতা যদি আমরা কেউ কেউ নাও জেনে থাকি তবুও মাধ্যমিকে পড়েছেন আর কবিতার প্রথম লাইনটি দেখেননি বা...

glyburide metformin 2.5 500mg tabs

জহির রায়হান— হারিয়ে যাওয়া এক সূর্যসন্তান এবং কিছু পাকিস্তানি পারজের ম্যাৎকার…

আজ আপনাদের এক বিস্মৃত ক্ষনজন্মা বীরের গল্প বলব। ১৯৩৫ সালের ১৯ আগস্ট বর্তমান ফেনী জেলার অন্তর্গত মজুপুর গ্রামে জন্ম নেয়া এই বীরের নাম জহির রায়হান। বাঙালি জাতিসত্তা এবং বাংলাদেশ গঠনে এক অনস্বীকার্য ভূমিকা পালন করা এই মহান বীর আমাদের মহান মুক্তিযুদ্ধে অবিস্মরণীয় ভূমিকা রেখেছিলেন একটা পুরনো আমলের সাধারণ ক্যামেরা, কিছু যন্ত্রপাতি এবং কিছু সহযোদ্ধাকে সাথে নিয়ে। এই সামান্য সম্বল দিয়েই তিনি নির্মাণ করেন স্টপ জেনোসাইড এবং লেট দেয়ার বি লাইট নামের দুটো আউটস্ট্যান্ডিং মাস্টারপিস। যাতে উঠে এসেছে ১৯৭১ সালে ফাকিস্তানি হায়েনাদের চালানো সভ্যতার সবচেয়ে জঘন্যতম নৃশংসতা ও বর্বরতার নির্মম আখ্যান। লেট দেয়ার বি লাইট শেষ করে যেতে পারেননি তিনি। তার...

হ্যাপি ফুটবলিং :-)

ফুটবল খেলা চলছে !! সবকিছুই ঠিকঠাক চলছিল । দুটি দলের লক্ষ্যই জয় । কেউ কাউকে বিন্দুমাত্র ছাড় দিতে রাজী নয় । খেলায় তখন টানটান উত্তেজনা । কিন্তু এই সময় হঠাৎ করেই সকল স্বাভাবিকতার ধারধারি না ঘেঁষে রেফারী বাবাজি একটি দলের ক্যাপ্টেনকে লাল কার্ড দেখিয়ে দিলেন । ব্যস, এবার আর সামলায় কে ! মূহুর্তের মাঝেই শুরু হয়ে গেল হৈ চৈ । “দলের ক্যাপ্টেনকে কেন লাল কার্ড দেওয়া হল” এই অযুহাতে খেলা বন্ধ করে মাঠের মাঝখানেই খেলোয়ারগুলো হাত–পা ছোঁড়াছুড়ি শুরু করে দিল । কিন্তু অবাক কান্ড ! একটি দলে খেলোয়াড় তো থাকে ১১ জন । কিন্তু মাঠের মাঝে যে ১৬ জন দাঁড়িয়ে... metformin gliclazide sitagliptin

মৃত্যু কি অনিকেত প্রান্তর???

পোস্ট শিরোনামঃ মৃত্যু কি অনিকেত প্রান্তর? আসলেই কি মৃত্যুই আমাদের অনিকেত প্রান্তর? একটু আর্টসেলের অনিকেত প্রান্তরের গানের কথা তারপর আমার কিছু কথা বলব আপনাদের। অনিকেত প্রান্তর – আর্টসেল “তবুও এই দেয়ালের শরীরে- যত ছেঁড়া রঙ, ধুয়ে যাওয়া মানুষ, পেশাদার প্রতিহিংসা, তোমার চেতনার যত উদ্ভাসিত আলো- রঙ আকাশের মতন অকস্মাৎ নীল, নীলে ডুবে থাকা তোমার প্রিয় কোন মুখ, তার চোখের কাছাকাছি এসে কেন পথ ভেঙে… দুটো মানচিত্র এঁকে দুটো দেশের মাঝে, বিঁধে আছে অনুভূতিগুলোর ব্যবচ্ছেদ… তবুও এইখানে আছে অবলীল হাওয়া জানালা বদ্ধ ঘরে আসে যায়, দেয়াল ধরে বেড়ে ওঠে মধ্যরাত তোমার ছায়ায় জমে এসে ভয়। আলোকে চিনে নেয় আমার অবাধ্য সাহস,...

zithromax azithromycin 250 mg
can levitra and viagra be taken together