Author: মাশিয়াত খান

অর্থনৈতিক মুক্তি ও নারী স্বাধীনতা

পরিবর্তন পোস্টটায় বেশ কিছু সমালোচনার মুখোমুখি হতে হয়েছিল। বিশেষ করে অর্থনৈতিক মুক্তির বিষয়টি উল্লেখ না করায় বেশি সমালোচিত হয়েছিলাম। তাতক্ষনিক উত্তর দেবার ইচ্ছা থাকলেও যথেষ্ট সময় না পাওয়ায় প্রতিউত্তর দেয়া হয়নি। তাই আন্তরিকভাবে দুঃখিত। সময় করে আজ বসেছি সেসব সমালোচনার উত্তর দিতে। মার্ক্সের একটি বহুল প্রচলিত উক্তি- Economy determines everything.  তবে এটি মনে হয় আমাদের জন্য প্রযোজ্য।  মানবসভ্যতার ইতিহাসে prehistoric, ancient, slave social constitution পর্যন্ত অর্থের আবির্ভাব ঘটেনি। অর্থের প্রচলন ও প্রয়োজন প্রথম দেখা যায় feudal social constitution-এ এবং এর পরবর্তী সময় থেকে এখন পর্যন্ত বিভিন্নভাবে অর্থের ব্যবহার চলে আসছে। বর্তমানে ব্যবস্থা এমন যে, money is the one and only...

পরিবর্তন

আমি প্রথম ফেসবুক চালানো শুরু করি ২০০৭ সালে। তখনও ফেসবুক বেশ জনপ্রিয় তবে আজকের মত হাতে হাতে না। ২০০৭-২০১৫ এই ৮ বছরে ফেসবুক নিজে যেমন বদলেছে তেমনি ফেসবুকের ব্যবহার, ব্যবহারকারীদের আচরণ সবই বদলেছে। সব তেমন মনে নেই তবে কিছু পরিবর্তন বেশ চোখে পড়ে। ২০০৭ সালে যখন আমি ফেসবুকে account খুলি তখন বেশ ছোট বলে বাবার কাছে অনুমতি নিয়েছিলাম। অনুমতি নিতে গিয়ে বাবাকে জিজ্ঞেস করেছিলাম, ‘ বাবা আমি ফেসবুকে একটা account খুলি? মামা, আপু, ফুপা, ভাইয়াকে ছাড়া আর কাউকে add করব না।’ এই বলে ফেসবুক খোলার পর অবশ্য ভাইয়ার এক বন্ধুকে অতিরিক্ত add করেছিলাম। ২০০৮-এ এসে আমি অচেনা মানুষদের সাথে বন্ধুত্ব...

side effects of drinking alcohol on accutane

আমাদের আশার বিপরীতে আমাদের অবস্থান

আশরাফুন্নাহার হঠাত এসে ভাগনী রিদিতাকে উচ্চ মাধ্যমিকের নতুন বাংলা বইটা দিয়ে পড়তে বলল। বেশ কয়েকটা গল্প পড়ার পর রিদিতা খাবার টেবিলে এসে বসল। এমন সময় আশরাফুন্নাহার জিজ্ঞেস করলেন, ‘বইটা পড়লি?’ -   পড়লাম কয়েকটা গল্প। -   বিড়াল পড়েছিস? -   হুম। -   কেমন লাগল? -   অনেক জায়গা বুঝিনি। বুঝিয়ে দিও। -   অপরিচিতা? -   বুঝেছি। -   কি মনে হল? -   ভাল । -    সরকার এবার একটু নতুন ধরনের গল্প দিয়েছে দেখে ভাল লাগল। -   মানে? -   মেয়েদের ত্যাগ বিসর্জনের কাহিনী পড়তে পড়তে আমি ত্যক্ত বিরক্ত। -   ঝেরে কাশ না মামী। -   ইন্টারে যে হৈমন্তী- বিলাসী ছিল সেগুলো ভাল গল্প ছিল। তবে এরকম গল্পে...

সৌন্দর্য বর্ধনের কি বিকৃত রূপ!!!

সাজসজ্জার বিষয়টি নিয়ে নারীদের প্রায়ই কটাক্ষ করা হয়। সৌন্দর্য বর্ধনের পেছনে নারীর ব্যয়িত শ্রম এবং সময় নিয়ে পুরুষের নিছক বেরসিক রসবোধের শেষ নেই। যেই শিল্পায়ন ও মিডিয়ার বদৌলতে নারী নিজেকে সাজাতে ব্যস্ত সেই মিডিয়াই আবার নারীকে রূপসজ্জা নিয়ে বিদ্রূপ করে। সে যাই হোক, নারীর রূপসজ্জা কতটা সমর্থনযোগ্য কিংবা সমর্থনযোগ্য নয় সে বিষয়ে লিখতে বসিনি। সে বিষয়ে তর্ক বেশ আগে থেকেই করা হয়ে আসছে। তারপরও যারা দ্বিধান্বিত তাদের জন্য সমাধান হিসেবে রয়েছে Naomi Wolf এর ‘The Beauty  Myth’  বইটি। ব্যক্তিগতভাবে আমি সাজগোজ খুব একটা পছন্দ করিনা। তবে সত্য বলতে চুড়ি আর টিপের প্রতি একটা দূর্বলতা কাজ করত। কিন্তু কবি নজরুলের ‘নারী’... can levitra and viagra be taken together

buy kamagra oral jelly paypal uk

বিশ্বাসঘাতক পুরূষ কিংবা শুধুই আমার গোঁড়ামি

‘কালরাত্রি’ বলে কিছু থেকে থাকলে সেটা হয়ত কাল রাতই ছিল। শনির দশা লেগে শোকের একবিশাল দমকা হাওয়া ছুটে গেছে। তবে সুখের বিষয় এই যে হাতের কাছে কিছু বই থাকে যেগুলো শোককে সুখে পরিণত করে দিতে পারে। বড়সড় কোন ধাক্কা খেলেই আমি রোকেয়া রচনাবলী খুলে বসি। ভাল লাগে। যেমন এখন ভাল লাগছে। মনে হচ্ছে অনেকদিন পর নিজের মধ্যে ফিরে এসেছি। পুরুষের থেকে মুক্ত মনে হয়। এই লেখাটা পড়ার আগে কেউ ‘ডেলিসিয়া হত্যা’ পড়ে নিলে বিষয়বস্তু বুঝতে সুবিধা হতে পারে।   ছোটবেলায়ই পুরুষের বিশ্বাসঘাতকতার সাথে আমার পরিচয় হয়েছিল। মনে হয় প্রত্যেক নারীরই হয়, অন্তত বাঙ্গালী নারীর তো বটেই। ছোটবেলায়ই শুনেছিলাম নানীর বাসর...

kamagra pastillas

বাংলায় গান গাই- প্রতূল মূখোপাধ্যায়

আমি বাংলায় গান গাই আমি বাংলায় গান গাই, আমি বাংলার গান গাই, আমি আমার আমিকে চিরদিন এই বাংলায় খুঁজে পাই আমি বাংলায় দেখি স্বপ্ন, আমি বাংলায় বাঁধি সুর আমি এই বাংলার মায়া ভরা পথে হেঁটেছি এতটা দূর [বাংলা আমার জীবনানন্দ বাংলা প্রাণের সুখ আমি একবার দেখি, বারবার দেখি, দেখি বাংলার মুখ] [আমি বাংলায় কথা কই, আমি বাংলার কথা কই আমি বাংলায় ভাসি, বাংলায় হাসি, বাংলায় জেগে রই] আমি বাংলায় মাতি উল্লাসে, করি বাংলায় হাহাকার আমি সব দেখে  শুনে ক্ষেপে গিয়ে করি বাংলায় চিৎকার [বাংলা আমার দৃপ্ত স্লোগান ক্ষিপ্ত তীর ধনুক, আমি একবার দেখি, বারবার দেখি, দেখি বাংলার মুখ] | আমি...

nolvadex and clomid prices

বরূণার মেইল

বরূণাকে আমি কখনোই খুব একটা পছন্দ করতাম না। বয়সে ও আমার চেয়ে অনেক বড় ছিল আর সম্পর্কে ছিল ভাবী। ভাবী হিসেবে আরই পছন্দ ছিল না ওকে। বরূণাকে সবসময় আমি নাম ধরেই ডেকেছি। ওকে সবাইই নাম ধরে ডাকত। আমার চার বছরের ভাগনীটাও ওকে বরূণা বলত। বরূণা কোনধরনের সম্বোধন পছন্দও করত না। এমনকি আম্মু যখন ‘মা’ বলে ডাকত ওটাও ওর অত পছন্দ ছিল না। আমি ঠিক জানিনা আমি কেন বরূণাকে পছন্দ করতাম না। তবে ওর মূখে সবসময় লেগে থাকা নির্লিপ্ততা খুব বিরক্তি তৈরি করত আমার। তাই হয়ত ভাল লাগত না। ভাইয়ার সাথে ওর সম্পর্ক ভেঙ্গে যাওয়ায় আমি সেজন্য খুশীই হয়েছিলাম। সম্পর্কটা অবশ্য... missed several doses of synthroid

irbesartan hydrochlorothiazide 150 mg

স্বাধীনতা-উত্তর ভাষ্কর্য (পর্ব-৩)

শুরু করছি সৈয়দ মঞ্জুরুল ইসলামের ভাষ্য দিয়ে। ‘এখানে শিল্পচর্চা এগিয়ে নেওয়ার ক্ষেত্রে সমমনা শিল্পীরা গোষ্ঠীবদ্ধ হয়ে কাজ করছেন। শিল্পচর্চা আন্দোলন ছাড়াও জাতীয় আন্দোলন বা বিভিন্ন সময়ে জাতির সংকটকালে সাধারণের পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন। বায়ান্নর ভাষা আন্দোলন, উনসত্তরের গণ-আন্দোলন, একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধ এসবে শিল্পী সমাজের অংশগ্রহণ স্বতঃস্ফূর্ত ছিল। তাই স্বাধীনতা-উত্তর বাংলাদেশে শিল্পীদের কাজে মুক্তিযুদ্ধের প্রবল উপস্থিতি ছিল অনিবার্য। শিল্পী জয়নুল আবেদিন থেকে তরুণ শিল্পীরা যাঁদের অনেকের জন্ম হয়তো একাত্তরের পর— তারাও  অন্তর দিয়ে অনুভব করেছেন মুক্তিযুদ্ধকে, এর অভিঘাত পড়েছে তাদের সৃষ্টিশীল চেতনায়।’ ( সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম) বাংলাদেশে অনেক শিল্পী স্বাধিকার সংগ্রামকে উপজীব্য করে শিল্প রচনা করেছেন, করছেন আশা করি ভবিষ্যতেও করবেন। মুক্তিযুদ্ধকে উপজীব্য...

metformin tablet

বন্ধুত্বেরও লিঙ্গভেদ!!!

শেহজাদ আমানের ‘চাইছি তোমার বন্ধুতা ’- পোস্টটা পড়ে আমার মাথায় সত্যিই এই প্রশ্নটা ঘুরপাক করছিল, বন্ধুত্ব কি চেয়ে নেবার মত কোন বিষয়?’ একই সাথে এই প্রশ্নটাও মনে হচ্ছিল, ‘চাওয়ার মাধ্যমে কি ভাল বন্ধুত্ব হতে পারেনা?’ যাই হোক সেই বিষয় নিয়ে আমি পোস্ট লিখতে বসিনি। লিখতে বসেছি ‘চাইছি তোমার বন্ধুতা (পর্ব-২)’- এর একটা অংশের কথা ধরে। আর আমি আমার জীবনে সত্যিকার অর্থে তেমন কোন মেয়েকে সত্যিকার বন্ধু হিসেবে পাইনি। যেসব মেয়ের সাথে একটু অন্তরঙ্গতা হয়েছিল, তারা বেশিরভাগই দেখেছি নারী-পুরুষের মধ্যে যে নিস্পাপ একটা বন্ধুত্ব হতে পারে, সেটা বুঝতে চাইতোনা। আমি তদেরকে যতই ইনোসেন্টলি দেখার চেষ্টা করতাম, তারা সেরকম ছিলনা এবং আমার...

wirkung viagra oder cialis

নাস্তিকদের কাছে অনুরোধ

আমার খুব ঘনিষ্ট বন্ধুদের একজন রাতুল। মানুষ হিসেবে ও যেরকম অসাধারণ তেমনি অনবদ্য বন্ধু হিসেবে। খুব রসিক আর পরোপকারী। খুব রসিক হওয়ায় ওকে ছাড়া আমাদের আড্ডা প্রায়ই নেতিয়ে যেত। আবার প্রায় আড্ডা ভেঙ্গে যেত ওর কারণেই। কারণটা হল ওর নাস্তিকতা। এটা কোন সমস্যা না যে ও নাস্তিক। সমস্যা এই যে, ও সবসময় চেষ্টা করত ওর আশেপাশের সবাইকে ওর ধারনাগুলো বলতে, বোঝাতে। সবসময় যে সমস্যা হত তাও না। প্রায়ই ও সফল হত। আমার আরেক বান্ধবী শিলাও ধীরে ধীরে ওর পথ ধরেছিল। ওর সাথে থাকার সুবাদে বা বিবাদে শিলারও ধর্ম থেকে বিশ্বাস উঠে গিয়েছিল। যাই হোক আমাদের আড্ডায় প্রায়ই এসব নিয়ে কথা...

para que sirve el amoxil pediatrico
tome cytotec y solo sangro cuando orino

একটি মেয়েলি হরমোনাল কথোপকথন

-   রেললাইনের ওখানে রিক্সা ধরে বসিস একটু। -   কেন? -   আসার সময় দেখি ওখানে এক মহিলা রিক্সা থেকে পড়ে গেছে। পায়ের আঙ্গুল থেতলে গেছে। পাঁচটা আঙ্গুল থেকেই প্রচুর ব্লিডিং হচ্ছিল। -   ও! মিতুর কথা শুনে হঠাতই কেমন জানি মেজাজ খারাপ হয়ে গেল। মনে মনে মহিলার উপর কেমন জানি রাগ লাগছিল। নিছক একটা দূর্ঘটনায় অকারণে মহিলার উপর রাগ ওঠায় নিজের উপর আরও বেশি রাগ হচ্ছিল। চিনি না, জানি না, ঘটনাটাও দেখিনি- খামোখা অযৌক্তিকের মত একজনকে দোষ দিচ্ছি ভেবে মেজাজ খারাপ হচ্ছিল আরো । -   কিরে? কোন কথা বলছিস না যে? -   মেজাজ খারাপ লাগছে। -   কেন? -   জানি না। ঘটনাটা শুনে...

viagra in india medical stores

মা_ তোমাদের সালাম

‘বীরাঙ্গনা শুনে মনে হয় আমাকে করুণা করা হচ্ছে’ ‘আমি সম্মানের সাথেই বলছি, প্লিজ নারী বলবেন না। আমার কাছে রুমী যেমন মুক্তিযোদ্ধা তারা বানুও একই রকম একজন মুক্তিযোদ্ধা। আলাদা করে নারী মুক্তিযোদ্ধা বললে আমার মনে হয় আলাদাভাবে দূর্বল প্রকাশ করার জন্য বলা হয়।’- ইসরাত নিশাত মুক্তিযোদ্ধা এবং বীরাঙ্গনাদের এধরনের বক্তব্যের সামনে আমি ভীত, বিভ্রান্ত, লজ্জিত। জাতির এই শ্রেষ্ঠ কন্যাদের সামান্য সম্মান জানানোর মত কোন সম্বোধনও কি আমাদের শব্দ ভান্ডারে নেই? WUCFFC এর পরিসংখ্যান অনুসারে ১৯৭১ সালে নির্যাতিত নারীর সংখ্যা ৪ লাখ ৮৬ হাজার। দেশের অভ্যন্তরে- ২ লাখের বেশি                 শরনার্থী ক্যাম্পে- ১ লাখেরও বেশি ধর্ষনের শিকার- ৭০%           ক্যাম্পপে রেখে নির্যাতন- ১৮%         অন্যান্য-...

metformin gliclazide sitagliptin

ভালবাসা যেখানে অপবিত্র, ভাঙ্গন সেখানে অনিবার্য ( পর্ব-১ )

ছোটচাচু কানাডায় থাকে। বছরান্তে জুলাইয়ের দিকে ছুটিতে বাংলাদেশে আসে। সেবার ঈদের সময় ছুটি পড়েছিল। পুরো পরিবার নিয়ে চলে এসেছিল চাচু। এখানে তেমন কোন কাজ থাকে না। সন্ধ্যায় আমার পড়া দেখতে বসত। সাথে পেপারও পড়ত। এক সন্ধ্যায় সেরকমই পেপার নিয়ে দেখছে আমি অংক করছিলাম। চাচী এসে বল, ‘তুমি কি ব্যস্ত?’ -     না। নিধিকে অংক করতে দিয়েছি। অংক দেখব। -     যুথীর এই ঔষধটা নিয়ে ডক্টরের সাথে কথা বলতে হবে। ওর রাগ তো কমছে না। -     হুম বলে দেখ। -     আচ্ছা, দেরি করলে রাগ আরো বেড়ে যাবে না? ডক্টরকে বরং তুমি একটা মেইল করে দিও। -     তুমিই দিও। যুথীকে তো তুমিই বেশি দেখাশোনা...

half a viagra didnt work
achat viagra cialis france

শিল্পের আচার্য আমাদের ‘শিল্পাচার্য’ জয়নুল আবেদিন

বাংলার প্রকৃতি, জীবনাচার, ঐশ্বর্য, দারিদ্র্য এবং বাঙালির স্বাধীনতার স্পৃহা যিনি তুলি আর ক্যানভাসে বিশ্ববাসীর সামনে মূর্ত করে তুলেছিলেন, সেই শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিন মৃত্যুদিবস ছিল গতকাল। তাই তাঁআ মহৎ কর্মজীবনের কিছু অংশ তুলে ধরার চেষ্টা করলাম।  জয়নুল আবেদীনের পূর্বপূরূষের বাসস্থান ছিল ময়মনসিংহের অন্তর্গত ত্রিশাল থানার দরিরামপুর গ্রামে। তাঁর প্রপিতামহ অবশ্য ময়মনসিংহের কাচিঝুলি গ্রামে বসবাস করতে। পিতামহ ছমিরউদ্দিন ছিলেন ছন ব্যবসায়ী। সন্তানদের সুশিক্ষিত করে তোলার ইচ্ছা থাকলেও অকালে প্রয়াত হওয়ায় তাঁর এই ইচ্ছা পূরণ হয় না। জেষ্ঠ্য পুত্র ৮ম শ্রেনী পাশ করে শিবপুর ইঞ্জইনিয়ারিং স্কুলে ভর্তি হতে চাইলেও অর্থসংকট ও রুঢ় বাস্তবতার জন্য তাঁকে পুলিশ বিভাগের লিটারেট কনস্টেবলের চাকরি নিতে হয়। পরে...

Rebel King of the Rock- বব ডিলান

বব ডিলান-  প্রায় পাঁচ দশক ধরে আমেরিকার সঙ্গীত ও সাহিত্য জগতের অন্যতম জনপ্রিয় সঙ্গীতশিল্পী, সুরকার এবং গীতিকার বব ডিলান। হয়ে আছেন জীবনমূখী গানের অন্যতম পথিকৃত। তখনকার জনপ্রিয় ধারার গানের বহির্ভুত ও বিপরীতমূখী গানের জন্ম দিয়ে বিখ্যাত হয়েছেন। মানুষের সৃষ্টিশীলতা কিভাবে মানুষকে তার সহজাত সব গুণের উর্ধ্বে নিয়ে যেতে পারে তার এক জ্বলন্ত সাক্ষ্য বব ডিলান। ‘একজন ভাল গায়ক হতে জন্মগত সুকন্ঠের অধিকারী হতেই হবে কিংবা ঐশ্বরিক গুণসম্পন্ন হতে হবে’- এমন সব ধারনাকে মিথ্যা প্রমাণ করে শীর্ষে আরোহন করেন। একই সাথে ফোক-রক, কান্ট্রি-রক দিয়ে নতুন ধারার সঙ্গীতের সূচনা করেন তিনি। ১৯৪১ সালের ২৪শে মে Minnesota-র Duluth শহরের ম্যারি হাসপাতালে জন্ম হয়...

puedo quedar embarazada despues de un aborto con cytotec

স্বাধীনতা-উত্তর ভাষ্কর্য (পর্ব-২)

১৯৭১ সালে পূর্ব পাকিস্তানে যে ভয়াবহ গণহত্যার সূচনা হয় তার বিপরীতে স্বাধিকারের জন্য আন্দোলনরত সাধারণ মানুষের রক্তক্ষয়ী নয় মাসের যুদ্ধের মাধ্যমে স্বাধীন রাস্ট্র হিসেবে বাংলাদেশের জন্ম হয়। মুক্তিযুদ্ধ পরবর্তী সময়ে যুদ্ধের রূপক সাক্ষ্য হিসেবে তৈরি হয়েছে বিভিন্ন ভাষ্কর্য। প্রথম পর্বেই বলা হয়েছিল এসব ভাষ্কর্যের আবির্ভাব সম্পর্কে। এই পর্বে আরো খানিকটা যুক্ত করা হল। স্বাধীনতা পরবর্তী সময়ে অন্যান্য বিভিন্ন ক্ষেত্রের মত শিল্পকলা ক্ষেত্রেও ব্যপক পরিবর্তন আসে। শিল্প সাহিত্যের অন্যতম প্রদিপাদ্য বিষয় হয়ে উঠে স্বাধীনতযুদ্ধ। এই বিষয়ে সংরক্ষিত একটী বক্তব্য তুলে ধরছি, ‘উনিশ শতক থেকেই সারা বিশ্বে প্রজাতান্ত্রিক কিংবা জাতীয় রাষ্ট্রের উত্থানের ফলস্বরূপ দেশে দেশে জাতীয় বীরত্ব ও বিজয়ের সৌধরূপে গণপ্রাঙ্গণ ভাস্কর্যের...

দৃষ্টিসীমার শৃঙ্খল ভঙ্গকারী দার্শনিক ও চিত্রকর ‘সালভাদর ডালি’

সালভাদর দালি (মে ১১, ১৯০৪ – জানুয়ারি ২৩, ১৯৮৯) কিছু মানুষের সৃষ্টিকর্ম তাদেরকে ঈশ্বরের কাছাকাছি একটি অবস্থান দিয়ে দেয়। অধিবাস্তববাদী শিল্পকর্ম দিয়ে সেরকমই একটি স্থানে পৌঁছানো চিত্রশিল্পী সালভাদর ডালি। তাঁর একক অধিবাস্তব শিল্পকৌশল এবং অনবদ্য কল্পনাশক্তি দিয়ে প্রকৃতির সবকিছুর মাঝে মানবসত্ত্বাকে ফুটিয়ে তোলার জন্য তাঁর শিল্পকর্মগুলো অন্য সবার থেকে ভিন্ন। অদ্ভুত ঢঙ্গের এই কাজগুলোই তাঁকে খ্যাতির শীর্ষে নিয়ে গেছে। সালভাদর দালির পুরো নাম ‘Salvador Felipe Jacinto Dalí Domènech’।  জন্ম স্পেনের কাতালান শহরের ফিকুইরেসে ১১ই মে, ১৯০৪ সালে। নোটারী বাবার পরিবারের তিন সন্তানের মধ্যে দালি ছিলেন দ্বিতীয়। বাবার পৃষ্ঠপোষকতায় তাঁর শিল্পচর্চা শুরু।  বড় ভাইয়ের মৃত্যুর পর দালির জন্ম হয় এবং বড়...

স্বাধীনতা-উত্তর ভাষ্কর্য (পর্ব-১ )

স্বাধীনতা পরবর্তীকালীন জীবনের সকল ক্ষেত্রে যেমন পরিবর্তন এসেছে, শিল্পকলার ক্ষেত্রেও এ পরিবর্তনের ছোঁয়া লেগেছে। স্বাধীনতোত্তরকালে কুসংস্কার, অশিক্ষা, ধর্মীয় গোঁড়ামি সত্ত্বেও এদেশে আধুনিক স্থাপত্য ও ভাস্কর্য চর্চায় এক নতুন উদ্দীপনায় অগ্রসর হয়েছে। মুক্তিযুদ্ধকে উপজীব্য করে বিশাল আকৃতির স্থাপত্য ও ভাস্কর্যের মাধ্যমে আমাদের শিল্পীরা সামাজিক নিয়ম-নীতির প্রচলিত গোড়ামির শিকল ভাঙ্গতে সক্ষম হয়েছেন। বিশ শতকে, বিশেষত দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পূর্বাপর সময়ে সমাজতান্ত্রিক মনোভাবাপন্ন রাষ্ট্রসমূহে গণবিপ্লব ও তার বিজয়ের গাথামূলক বৃহদায়তন বহিরাঙ্গন ভাস্কর্য নির্মাণের ব্যাপক প্রবণতা লক্ষ করা যায়। বিশ শতকের সত্তরের দশকে বাংলাদেশের রাষ্ট্র ও জনমনেও একইভাবে মুক্তিযুদ্ধ ও তার বিজয়কে স্মরণীয় করে রাখতে বহিরাঙ্গনে বৃহদায়তন সৌধ ভাস্কর্যের চাহিদা তৈরি হয়। বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামের...

glyburide metformin 2.5 500mg tabs
levitra 20mg nebenwirkungen