Author: সুফি আহমাদ ইশতিয়াক

শামসুর রহমান ও বাংলা সাহিত্য ( সাক্ষাৎকার )

আজ শামসুর রহমানের ৮৭ তম জন্মদিন। বাংলা সাহিত্যের যুগ শ্রেষ্ঠ কবির প্রতি রইলো গভীর শ্রদ্ধা। বাংলাদেশে খ্যাতিমান সাহিত্য সম্পাদক প্রয়াত মীজানুর রহমান তার বিখ্যাত সাহিত্য পত্রিকা ‘মীজানুর রহমানের ত্রৈমাসিক পত্রিকা’য় ১৯৯১ সালে ‘শামসুর রাহমান সংখ্যা’ ছেপে ছিলেন। এতে প্রয়াত সাহিত্যিক অধ্যাপক ড. হুমায়ুন আজাদের নেয়া বাংলা সাহিত্যের অন্যতম শক্তিমান কবি শামসুর রহমানের একটি দীর্ঘ সাক্ষাৎকার ছাপা হয়েছিল, যার শিরোনাম ছিলো “শামসুর রাহমান: নিঃসঙ্গ শেরপা”। কিছু অংশ আজ প্রকাশ করলাম। হুমায়ুন আজাদ: শামসুর রাহমান, পৌষের-এ ভোরবেলায় আপনাকে শুভেচ্ছা জানাই। আপনাকে প্রথম দেখেছিলাম সম্ভবত বাইশ বছর আগে, তখন আপনি এতো পরিচিত ছিলেন না। এর মাঝে পৃথিবী, বাঙলাদেশ, আপনি, আমি সবাই বদলে গেছি। আমি...

“মন পাবি দেহ পাবি ভ্যাট পাবি না” ও একটি প্ল্যাকার্ড

                                                                                        মন পাবি, দেহ পাবি, ভ্যাট পাবিনা। বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভ্যাট বিরোধী আন্দোলনে একটি প্ল্যাকার্ডে লেখা। তাতেই কিছু থার্ড ক্লাস লোকের শুরু হলো চুলকানি! কারণটি কি জানেন? কারন মানুষটি মেয়ে! কারন মানুষটি একজন নারী। একজন পুরুষ বা একজন ছেলে ওই প্ল্যাকার্ড টি যদি ধরতো,ছবি তুলতো তাহলে কিচ্ছুই হতো না! কারন সে ছেলে সে সব কিছুই করতে পারে। তার...

উচ্চ শিক্ষায় বাণিজ্য ও ভ্যাট প্রত্যাহার আন্দোলন

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপর ভ্যাট প্রত্যাহারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন টি নিঃসন্দেহে শিক্ষার্থীদের উদ্বুদ্ধ করবে। তবে কয়েকটি বিষয়ে কিছু মানুষ ভুল করেছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট হ্যাক করে সম্পূর্ণ গাধার পরিচয় দিয়েছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা ভ্যাটের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করুক বা না করুক ওটি তাঁদের ব্যাপার। কারন যেটি হয়েছে সেটি রাজনৈতিক নয়। সুতরাং এখানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কোনো স্বার্থ নেই। মূল স্বার্থটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় এবং মেডিকেলের। সুতরাং আসতে হলে নিঃস্বার্থ ভাবেই আসবে। কাউকে জোর করে বাধ্য করা বা আন্দোলনে সমর্থন আদায়ের জন্য অনুনয় করা পাগলামির পরিচয়।এতো কিছুর পরেও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অনেক শিক্ষার্থী ভ্যাট প্রত্যাহারের জন্য সমর্থন দিয়েছেন। অর্থ মন্ত্রীর এবার সময় হয়েছে অবসরে যাওয়া। লোকটা...

জয় বাংলা এক প্রেরণার নাম

  জয় বাংলা! বাঙ্গালীর প্রাণের স্লোগান। বাঙ্গালীর মুক্তি সংগ্রামের এক অনবদ্য স্থান দখল করে আছে “জয় বাংলা”। জয় বাংলার মাঝে আছে এক অদ্ভুত প্রেরনা। জয় বাংলা শব্দটি শুনলেই মুক্তির খোঁজে মন ছুটে। জয় বাংলা বাঙ্গালীর এক আত্মার বন্ধন যা কিনা প্রতিটি স্পন্দনে মিশে আছে। প্রতিটি রক্তকনায়, ঘামের ফোঁটায়, এক অপূর্ব মিল বন্ধন। বাঙ্গালীর এক আবেগের নাম জয় বাংলা! ছবিটি দেখুন! জয় বাংলা, ভ্যাট সামলা! জয় বাংলা কারো ব্যাক্তিগত সম্পত্তি নয়। প্রতিটি বাঙ্গালীর সাথে মিশে আছে জয় বাংলা! জয় বাংলা বলে আজ শিক্ষকের উপর হামলা হয়। ভ্যাট প্রত্যাহারের দাবিতে জয় বাংলার অপমান হয়, জয় বাংলা বলে বিশ্বজিৎ খুন হয়, হল দখলে...

synthroid drug interactions calcium

এক দৌলা মিয়া

দৌলার জন্ম কুমিল্লা জেলার শালদানদী গ্রামে। দীর্ঘাকৃতি,স্বাস্থ্যবান এবং শক্তসামর্থ দেহের অধিকারী কর্তব্যে সদা নিবেদিতপ্রাণ আমাদের এই দৌলা। চোখে তার লালমাইয়ের বুনোতা। একাত্তরে আমাদের যেকয়টি রণক্ষেত্র পুরো নয় মাসজুড়ে উত্তপ্ত ছিলো তার মধ্যে ছিলো ফেণী-বিলোনিয়া, কামালপুর এবং আমাদের দোলার এই গ্রাম শালদানদী। দেশ কি? পৌরনীতি,সমাজনীতির কঠিন সেই সংজ্ঞা দৌলা বোঝেনা, দেশ বলতে চেনে সে শুধু নিজ গ্রামকেই, গ্রামের ছোট্ট নোংরা পুকুরকে, বাতাসে সবুজ ধানক্ষেতের সোনালী শীষগুলোর থির থির কাঁপনকে। কিন্তু দৌলা চেনে খাকী পোশাকের সেই পাইয়্যাদের, বোঝে তারা শত্রু,তারা হানাদার, তাড়াতে হবে তাদের এই বাংলার মাটি থেকে ; প্রয়োজনে উৎসর্গ করতে হবে প্রাণ। যুদ্ধ শুরু হবার পরপরই তাই নিজ স্ত্রী আর...

metformin gliclazide sitagliptin

ভাষার দাবিতে এক লড়াকু যোদ্ধা

  পাকিস্তান সৃষ্টির ঠিক ছয় মাস দশ দিন পর, ২৫ ফেব্রুয়ারী ১৯৪৮ সালে করাচিতে পাকিস্তান গণপরিষদের প্রথম অধিবেশনে  পূর্ব বাংলার কংগ্রেস দলীয় সদস্য ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত সংশোধনী প্রস্তাবে ২৯নং বিধির ১নং উপবিধিতে উর্দু ও ইংরেজির পর ‘বাংলা’ শব্দটি যুক্ত করার দাবি জানান। তিনি যুক্তি উপস্থাপন করেন, পাকিস্তানের ৫টি প্রদেশের ৬ কোটি ৯০ লাখ মানুষের মধ্যে ৪ কোটি ৪০ লাখ মানুষ বাংলা ভাষাভাষী। সুতরাং বিষয়টিকে প্রাদেশিকতার মধ্যে সীমাবদ্ধ না রেখে বাংলাকে বৃহত্তর জনগোষ্ঠীর ভাষা হিসেবে দেখা উচিৎ। তাই তিনি গণপরিষদে উর্দু ও ইংরেজির পাশাপাশি বাংলা ভাষাকেও রাষ্ট্রভাষা হিসেবে অন্তর্ভুক্তির দাবি করেন। লিয়াকত আলী খান সাম্প্রদায়িক বক্তব্যের ভিত্তিতে এই দাবী নাকচ করে দেন।...

স্বপ্নের খোঁজে

মানুষটার সাথে পরিচয় আমার কোনো কালেই ছিলোনা! প্রথম পরিচয় রিফিউজি ক্যাম্পে! হঠাৎ হঠাৎ কোথা হতে উদয় হতো! পিছে দু বস্তা চাল, 2 টিন তেল আর সামন্য চালনীতে পেঁয়াজ! পেঁয়াজ গুলো রেখেই আমগাছের নিচে বসে খানিকটা জিরিয়ে নিতো! পুরো রিফিউজি ক্যাম্প সারাক্ষম গমগম করে! সকাল বিকাল খাওয়ার সময় এলেই সবার ডাক পড়ে! সবাই সারিবদ্ধ ভাবে বসে পড়ে! দুটো মগ দিয়ে সদ্য পাকানো হলদে চালের পানি বিলোয়! কারো প্লেটেই খানিকটা বাড়ে না! একমুঠো চালের খিচুড়ি বহু আরাধ্য! সবাই চেটে পুটে খায়! এক বৃদ্ধাকেও প্রায়ই দেখতাম! গালের চামড়া ঝুলে গেছে! কিছুক্ষণ পরপর মাছি উড়তে থাকে! হাত দিয়ে তাড়ানোর শক্তি ও নেই! মাছি নির্ভয়ে...

metformin tablet
half a viagra didnt work

উচ্চ শিক্ষা ও আমাদের ধারনা

আমাদের দেশে অনেকে ডাক্তারি পরে শুধু পরিবারের ইচ্ছার বিরুদ্ধে যেতে পারেনা বলে! পরিবার চায় সন্তান ডাক্তার হোক। প্রকৌশল বিদ্যার ক্ষেত্রেও এটি প্রযোজ্য। খুব কম শিক্ষার্থী ভালোবেসে স্বেচ্ছায় পড়তে আসে। যেমনটি ইংরেজি সাহিত্যের বেলায়, তেমনটি বিবিএর মেলায়। বিবিএ না জেনেই বিবিএ পড়তে আসে। সমস্যা আবার অন্যদিকে। আমাদের শিক্ষা ব্যাবস্থা এতোটাই নাজুক যে সরকারী বিশ্ববিদ্যালয় বাদ দিলে নিম্ন মধ্যবিত্ত দের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সুযোগ হয়না শুধু আর্থিক অনটনের কারনে। বাকি রইলো জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। যা কচ্ছপের মাসতুতো ভাই। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক সংকট থেকে সেশন জট, আধুনিক শিক্ষা পদ্ধতির অপ্রতুল চাহিদা! সমস্যার শেষ নেই। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীর সংখ্যা প্রায় ১৪ লাখ। দেশে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের...

side effects of quitting prednisone cold turkey